রংপুর প্রেসক্লাব চত্বরে ১৪৪ ধারা

রংপুর প্রেসক্লাব চত্বরে একই সময়ে বেগম রোকেয়া বিশ্ববিদ্যালয়ের উপাচার্যবিরোধী আন্দোলনের পক্ষে-বিপক্ষের দুই দল কর্মসূচি পালনের ঘোষণা দেয়ায় বৃহস্পতিবার ১৪৪ ধারা জারি করে সব ধরনের সভা-সমাবেশ নিষিদ্ধ করেছে জেলা প্রশাসন। বুধবার রাত ১২টায় এই আদেশ জারি করে জেলা প্রশাসন।
উপাচার্যের অপসারণের দাবিতে আন্দোলনরত শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা বৃহস্পতিবার সকাল ১১টায় প্রেসক্লাব চত্বরে সমাবেশের কর্মসূচি দেয়। এজন্য মঙ্গলবার তারা প্রেসক্লাব কর্তৃপক্ষের কাছ থেকে অনুমতিও নেয়।
এদিকে ‘আন্দোলনের নামে বিশ্ববিদ্যালয়ে নৈরাজ্য সৃষ্টির’ প্রতিবাদে রংপুর মহানগর নাগরিক কমিটি একই চত্বরে সমাবেশ ডাকে।
জেলা প্রশাসক ফরিদ আহাম্মদ সাংবাদিকদের জানিয়েছেন বিশৃংখলা এড়াতে এই আদেশ জারি করা হয়েছে এবং পরবর্তী নির্দেশ না দেয়া পর্যন্ত সেখানে সব ধরনের সভা সমাবেশ, মিছিল ও মানববন্ধন নিষিদ্ধ করা হয়েছে।
আন্দোলনকারী ছাত্র-শিক্ষক পরিষদের নেতা কর্মীরা জানিয়েছেন রংপুরের নাগরিক কমিটির নামে কিছু সিটি মেয়রের সমর্থিত ক্যাডারদের ভিসি মোটা অঙ্কের অর্থের বিনিময়ে ম্যানেজ করেছেন। আন্দোলনকারী শিক্ষক নেতা গণিত বিভাগের শিক্ষক হাফিজুর রহমান সেলিম বলেন,’ উপাচার্যের অপসারণ না হওয়া পর্যন্ত আন্দোলন চালিয়ে যাবেন।‘
অপরদিকে নাগরিক কমিটির সদস্য সচিব রফিকুল ইসলাম দুলাল বলেন, আন্দোলনের নামে যারা নৈরাজ্য সৃষ্টি করে বিশ্ববিদ্যালয়ের পরিবেশ অস্থিতিশীল করছে, তাদের বিরুদ্ধে ব্যবস্থা না নেয়া পর্যন্ত আন্দোলন চলবে।
গত ৫ জানুয়ারি থেকে উপাচার্য ড. আব্দুল জলিল মিয়ার ‘দুর্নীত’র প্রতিবাদে সচেতন শিক্ষক সমাজের ব্যানারে শিক্ষকরা এবং সম্মিলিত ছাত্র সমাজের ব্যানারে শিক্ষার্থীরা আন্দোলন চালিয়ে যাচ্ছে।
সূত্র: পরিবর্তন ডট কম

আরো দেখুন

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.