বুলিংয়ে ঘটনায় ইন্টারন্যাশনাল স্কুল প্রধানকে লিগাল নোটিস

বুলিংয়ের শিকার এক অভিভাবকের অভিযোগের ভিত্তিতে ইন্টারন্যাশনাল স্কুল ঢাকার (আইএসডি) প্রিন্সিপাল ডিরেক্টর টি জে কোবরানকে লিগ্যাল নোটিশ পাঠানো হয়েছে। নোটিশে অভিযোগ করা হয়, বুলিংয়ের ঘটনায় স্কুলের হেড অব সেকেন্ডারি ইলডিকো মুরে ভুক্তভোগী শিশুকে সাহায্য না করে বরং অপমানজনক আচরণের মাধ্যমে ‘স্কুল থেকে ঝরে পড়া’র মতো অবস্থা তৈরি করেছেন।

২০১৭ সালে ইন্টারন্যাশনাল স্কুল ঢাকার সপ্তম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী সহপাঠীদের বুলিংয়ের শিকার হয়ে মানসিকভাবে বিপর্যস্ত হয়ে পড়ে। ওই শিশুর মা সালমা খানম বিষয়টি কর্তৃপক্ষকে জানালে তারা ঘটনার প্রতিকার না করে বরং নির্যাতিত শিশুটিকেই দোষারোপ করে। একসময় স্কুল থেকে ঝড়ে পড়ে শিশুটি। এ প্রেক্ষিতে সন্তানের শারীরিক ও মানসিক ক্ষতির জন্যে আইএসডি স্কুল কর্তৃপক্ষকে দায়ী করে ৮৫ কোটি টাকা (১০ মিলিয়ন ইউএস ডলার) ক্ষতিপূরণ দাবি করেন ভুক্তভোগী শিক্ষার্থীর অভিভাবক। অনাদায়ে স্কুল কর্তৃপক্ষের বিরুদ্ধে আইনানুযায়ী ব্যবস্থা নেওয়া হবে বলে নোটিশে উল্লেখ করা হয়।


>> নিয়মিত আপডেট পেতে ফেসবুক পেজে লাইক দিন: fb.com/educationbarta

সাম্প্রতিক পোস্ট

মন্তব্য করুন

This site uses Akismet to reduce spam. Learn how your comment data is processed.